এবার দুর্গাপুজোর নাম করে তোলাবাজির অভিযোগ উঠল তৃণমূল কাউন্সিলরের বিরুদ্ধে। অভিযোগ, শিয়ালদা ৯-এর পল্লী দুর্গোৎসব কমিটির পুজোর জন্য ফান্ড জোগাড়ের নাম করে তোলাবাজি করছেন মোনালিসা বন্দ্যোপাধ্যায়। কলকাতা পুরসভার ৪৯ নম্বর ওয়ার্ডে এই মর্মে একাধিক পোস্টার পড়েছে। যেখানে লেখা রয়েছে, ‘দুর্গাপুজোর নাম করে মোনালিসা চক্রবর্তীর তোলাবাজি মানছি না, মানব না।’ যদিও সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছেন কাউন্সিলর।

Durga Puja : ‘বাচ্চাদের নতুন জামা কে দেবে? কে ঠাকুর দেখাবে?’ আঁচল দিয়ে চোখ মুছলেন অনুপম দত্তের স্ত্রী
কাউন্সিলরের নামে তোলাবাজির পোস্টার

শুক্রবার সকাল থেকেই শিয়ালদার ৪৯ নম্বর ওয়ার্ডে তৃণমূল কাউন্সিলর মোনালিসা বন্দ্যোপাধ্যায়ের নামে পোস্টারে ছয়লাপ হয়ে যায়। তাঁর বিরুদ্ধে দুর্গাপুজোর চাঁদা নেওয়ার নাম করে তোলাবাজির অভিযোগ উঠেছে। শিয়ালদার শ্রদ্ধানন্দ পার্কে ৯-এর পল্লী দুর্গোৎসব কমিটির পুজোর নাম এই তোলাবাজি চলছে বলে অভিযোগ।

Durga Puja 2022: পুজোর অনুদান পেয়ে চাঁদা ফেরানোর সিদ্ধান্ত কমিটির
অভিযোগ অস্বীকার তৃণমূল কাউন্সিলরের

তোলাবাজির এই অভিযোগ অস্বীকার করেছেন তৃণমূল কাউন্সিলর মোনালিসা বন্দ্যোপাধ্যায়। এই সময় ডিজিটালকে তিনি বলেন, “ভালো কাজ করতে গেলে এমনটাই হয়। ওই এলাকায় গাঁজার ঠেক বসত। দীর্ঘদিন ধরে অসামাজিক কাজকর্ম চলত। সেটাকে বন্ধ করিয়েছি। প্রতিবছর ৯-এর পল্লী শিয়ালদা দুর্গোৎসব কমিটির পুজো ছোট করে হত। এবার তা বড় করে আয়োজন করার ব্যবস্থা করেছি। আর তাতেই এদের গাত্রদাহ হয়েছে।” মোনালিসা বন্দ্যোপাধ্যায় আরও বলেন, “৪৯ নম্বর ওয়ার্ডের জনপ্রতিনিধি হিসেবে আমি এলাকাবাসীর জন্য কী কী করেছি তা সকলেই জানেন। মানুষের নাম চট করে এমন অপবাদ দিয়ে দেওয়া খুব সোজা। আমি এই অভিযোগের বিরুদ্ধে FIR দায়ের করব। প্রয়োজনে মানহানির মামলা করব। আমাদের একটা আদর্শ রয়েছে। যা যা ডোনেশন কিংবা চাঁদা নেওয়া হয়েছে, পুজোর সমস্ত কাগজ আমি দেখিয়ে দিতে পারি। প্রমাণ হয়ে যাবে কী তোলাবাজি হয়েছে।”



Source link

Leave a Reply

Your email address will not be published.